bangladesh
 14 Feb 19, 05:16 AM
 42             0

খানজাহান আলী বিমানবন্দর বাণিজ্যিকভাবে লাভজনক হবে॥পরিকল্পনামন্ত্রী  

খানজাহান আলী বিমানবন্দর বাণিজ্যিকভাবে লাভজনক হবে॥পরিকল্পনামন্ত্রী   

নিউজ ডেস্কঃ পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান বলেন, খানজাহান আলী বিমানবন্দর নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর খুবই আগ্রহ রয়েছে, তিনি নিয়মিত এটার খোজ খবর নেন। এখানে বিমান বন্দর খুব প্রয়োজন। যশোরে নেমে এখানে আসতে প্রায় দুই থেকে আড়াই ঘণ্টা সময় লেগেছে। যদি এটা থাকতো তাহলে সরাসরি এখানেই নামতে পারতাম। এ বিমান বন্দরটি বাণিজ্যিকভাবে অত্যন্ত লাভজনক হবে। কারণ রামপাল তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র হচ্ছে, পাশে মোংলা বন্দর ও খুলনা রয়েছে। এখানে বিমানবন্দর হওয়াটা যৌক্তিক বলেই এটার অনুমোদন হয়েছে। আজ বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার ফয়লায় নির্মাণাধীন খান জাহান আলী বিমানবন্দর পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন।


পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, বিমান বন্দর নির্মাণে ইতিমধ্যে ভূমি অধিগ্রহণ হয়ে গেছে। চারিদিকে নিরাপত্তা বেষ্টনির কাজ শুরু হয়েছে। এখন মূল কাজ হবে রানওয়ে নির্মাণ করা। সেটা অত্যন্ত কঠিন কাজ, তবে আমরা তাও পারবো। যেমন আমরা পদ্মাও সেতু নির্মাণ করছি। তিনি আরও বলেন,‘আমরা চাইবো এই কাজটা হোক। ফিরে গিয়ে এটা নিয়ে প্রধানমন্ত্রী, বিমানমন্ত্রী ও সচিবের সঙ্গে আমি কথা বলবো। সবাই মিলে দেশের সার্বিক উন্নয়নের অংশ হিসেবে এ বিমানবন্দর গড়ে তুলবো। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র আলহাজ তালুকদার আব্দুল খালেক, বাগেরহাট জেলা প্রশাসক তপন কুমার বিশ্বাস, জেলা পুলিশ সুপার পংকজ চন্দ্র রায়, রামপাল উপজেলা নির্বাহী অফিসার তুষার কুমার পাল ও মোংলা-রামপাল সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. খায়রুল আলমসহ স্থানীয় প্রশাসনের অন্যান্য কর্মকর্তা ও রাজনৈতিক নেতারা।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')