international
 12 Feb 19, 05:17 AM
 7             0

ভারতরত্ন পুরস্কার নেবে না কিংবদন্তির কণ্ঠশিল্পী ভূপেন হাজারিকার পরিবার।।  

ভারতরত্ন পুরস্কার নেবে না কিংবদন্তির কণ্ঠশিল্পী ভূপেন হাজারিকার পরিবার।।   

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ ভারতরত্ন পুরস্কার নেবে না বিখ্যাত গায়ক ভূপেন হাজারিকার পরিবার। দেশের নাগরিকত্ব বিলের প্রতিবাদে এ সম্মাননা তারা ফিরিয়ে দিচ্ছেন বলে জানা গেছে। এ বিষয়ে ভূপেন হাজারিকার ছেলে তেজ হাজারিকা বলেন, আমি অসমের এ পরিস্থিতি সম্পর্কে অবগত। এ থেকে আমি সরতে পারি না। ভূপেন হাজারিকা সবসময়ই এর প্রতিবাদ করেছেন। সম অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছেন। তাই আমরা এ সম্মান নিতে পারছি না। সম্প্রতি, ভূপেন হাজারিকাসহ প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায় ও সমাজকর্মী নানাজি দেশমুখকে ভারতরত্ন সম্মানে সম্মানিত করার কথা জানায় কেন্দ্রের সরকার। প্রজাতন্ত্র দিবসেই ওই সম্মান তুলে দেওয়া হবে জানানো হয়েছে। এরই মধ্যে ভারত সরকারের দেওয়া মরণোত্তর ভারতরত্ন সম্মান নেবেন না বলে জানায় ভূপেন হাজারিকার পরিবার।

বাংলাদেশ, আসাম ও পশ্চিমবঙ্গে ভূপেন হাজারিকার জনপ্রিয়তা ছিল ব্যাপক। অসমীয়া ভাষা ছাড়াও বাংলা ও হিন্দি ভাষাতেও তিনি সমান পারদর্শী ছিলেন এবং অনেক গান গেয়েছেন। অবশ্য এসব গানের অনেকগুলোই মূল অসমীয়া থেকে বাংলায় অনূদিত। তার গানে মানবপ্রেম, প্রকৃতি, ভারতীয় সমাজবাদের, জীবন-ধর্মীয় বক্তব্য বিশেষভাবে লক্ষ্যণীয়। এছাড়াও, শোষণ, নিপীড়ন, নির্যাতনের বিরুদ্ধে বলিষ্ঠ প্রতিবাদী সুরও উচ্চারিত হয়েছে বহুবার। সঙ্গীতে অসামান্য অবদানের জন্য নেক পুরস্কার পেয়েছেন তিনি। তার উল্লেখযোগ্য পুরুস্কারগুলো হচ্ছে- ১৯৭৯ সালে অল ইন্ডিয়া ক্রিটিক অ্যাসোসিয়েশন পুরস্কার, ১৯৮৭ সালে অসম সরকারের শঙ্করদেব পুরস্কার, ১৯৯২ সালে দাদাসাহেব ফালকে পুরস্কার, ১৯৯৩ সালে পদ্মভূষণ, ২০০১ সালে অসম রত্ন এবং ২০০৯ সালে সঙ্গীত নাটক একাডেমি পুরস্কার। তিনিই প্রথম ভারতীয় হিসেবে জাপানে এশিয়া প্যাসিফিক আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে রুদালী ছবির শ্রেষ্ঠ সঙ্গীত পরিচালকের পুরস্কার অর্জন করেন।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')