bangladesh
 21 May 20, 01:22 PM
 84             0

শেরপুরে মাদকাসক্তদের ছুরিকাঘাতে এক কৃষক নিহত॥আহত দুই

শেরপুরে মাদকাসক্তদের ছুরিকাঘাতে এক কৃষক নিহত॥আহত দুই

নিউজ ডেস্কঃ শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ী সীমান্তে মাদকাসক্তদের ছুরিকাঘাতে এক কৃষক নিহত হয়েছেন। বুধবার রাতে সীমান্তের বুরুঙ্গা কালাপানি এলাকার সীমান্ত সড়কে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সুনীল চাম্বুগং (৪৮) পোড়াগাঁও ইউনিয়নের পূর্ব সমেসচূড়া গ্রামের লিপিন মারাকের ছেলে। হামলায় নিহতের স্ত্রী দিবাস মারাক (৩৫) ও তার জামাতা আনতুন মারাক (৩০) আহত হয়ে ঝিনাইগাতী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়েছেন। এ ঘটনায় স্থানীয় লোকজন হত্যায় জড়িত তিনজনকে ধরে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। আটকেরা হলো জামালপুর জেলার মেলান্দহ উপজেলার মহিরামপুর গ্রামের নূর ইসলামের ছেলে স্বপন (২৮), ময়মনসিংহের ধোবাউড়া উপজেলার পশ্চিম নেককার কান্দা গ্রামের জয়চরণ পাতাং এর ছেলে পিরেন্দ্র রকমা (৪৫)। অন্যজনের পরিচয় জানা যায়নি।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নিহত কৃষক স্ত্রী ও জামাতাকে নিয়ে সারাদিন ধান কেটে সীমান্ত সড়কে মাড়াই করেন। ধান মাড়াই শেষে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে তিনি বস্তাভর্তি ধান দুটি ভ্যানে ভর্তি করে বাড়ি ফিরছিলেন। গারো পাহাড়ের বুরুঙ্গা-কালাপানি নামক স্থানে আসার পর বিপরীত দিক থেকে একটি মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ভ্যানে ধাক্কা দেয়। এসময় ওই তিন নেশাগ্রস্থ ব্যক্তি রাস্তার পাশে পড়ে যায়। কোন কিছু বোঝার আগেই তারা ক্ষিপ্ত হয়ে দিবাস মারাককে মারধর করতে শুরু করে।

স্ত্রীকে বাঁচাতে সুনীল এগিয়ে এলে তিনজন মিলে সুনীলের উপর হামলা করে। একপর্যায়ে ঘাতকের দল ছুরি দিয়ে সুনীলের বুকের পাজরের নিচে আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। পরে দিবাস ও জামাতার উপর হামলা করে তাদের জখম করে। এসময় তাদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন বেরিয়ে এসে তিনজনকে ঘিরে ফেলে এবং গণপিটুনি দেয়। খবর পেয়ে রাত ১০টার দিকে নালিতাবাড়ী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায় এবং তিন ঘাতককে থানায় নিয়ে যায়।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')